টঙ্গিবাড়ীতে সাড়ে তিন মাস বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত শিক্ষিকা!

টঙ্গিবাড়ী উপজেলায় সায়মা ইশরাত নামে এক সহকারী শিক্ষিকা অফিস আদেশে যোগদানের পর থেকে সাড়ে তিন মাস ধরে ধামারণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত রয়েছেন। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ পাঠদানে যুক্ত হতে বললে উল্টো কিছু রাজনৈতিক নেতার প্রভাব খাটিয়ে সরকারি নির্দেশ অমান্য করে গত বৃহস্পতিবার পর্যন্ত তিনি পাঠদানে যুক্ত হননি বলে জানান প্রধান শিক্ষিকা নাজমা বেগম।

উপজেলা শিক্ষা অফিসের এক আদেশে গত ১১ এপ্রিল সহকারী শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত ধামারণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগ দেন। এরপর থেকে মৌখিক ডেপুটেশনের কথা বলে গতকাল বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সাড়ে তিন মাস ধরে সহকারী শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত ধামারণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগদান করেনি। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, রাজনৈতিক প্রভাব খাটিয়ে সহকারী শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত বাড়ি-সংলগ্ন বড়াইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত রয়েছেন।

জানা গেছে, গত মে মাসের শেষ সপ্তাহে টঙ্গিবাড়ী উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা শিক্ষকদের নিয়ে এক সভায় মৌখিক ডেপুটেশনের নামে অনিয়মতান্ত্রিকভাবে যেসব শিক্ষক বিভিন্ন বিদ্যালয়ে কর্মরত, তারা আদেশ অনুযায়ী নিজ নিজ বিদ্যালয়ে যোগদানের নির্দেশনা দেওয়া হয়। কিন্তু দুই মাস অতিবাহিত হলেও নির্দেশনা উপেক্ষা করেই বহালতবিয়তে আছেন শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত।

বড়াইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক (চলতি দায়িত্ব) মো. আবদুল মোতালেব জানান, তার বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষিকা পদে কর্মরত আছেন সায়মা ইশরাত।

ধামারণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা নাজমা বেগম জানান, ১১ এপ্রিল যোগদানের পর সহকারী শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত বিদ্যালয়ে আসেননি। শিক্ষকদের হাজিরা খাতায় তার উপস্থিতির স্থান শূন্য রয়েছে। বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি কাজী সাব্বির আহমেদ দীপু জানান, সরকারি আদেশে যোগদান করে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত কেন, জানতে চাইলে অভদ্র আচরণ করেন শিক্ষিকা সায়মা। এমনকি কিছু রাজনৈতিক নেতার মাধ্যমে প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করেন তিনি।

সহকারী শিক্ষিকা সায়মা ইশরাত বলেন, এ বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসের কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলেছি। এর পরিপ্রেক্ষিতে তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করব।

এ প্রসঙ্গে টঙ্গিবাড়ী উপজেলার ভারপ্রাপ্ত শিক্ষা কর্মকর্তা মো. শওকতউল্লাহ জানান, পোস্টিংকৃত বিদ্যালয়ে যোগদান না করে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করার বিষয় জানতে চেয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সমকাল

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.